মাসব্যাপী

শহরে কঠিন চীবর দান উৎসব শুরু

unnamed (1)প্রেস বিজ্ঞপ্তি :

ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে শহরে মাসব্যাপী কঠিন চীবর দান উৎসব শুরু হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে বাজারঘাটা পিটাকেট মন্দিরে রাখাইন ইয়ুথ ইউনিটি’র আয়োজনে ২ দিন ব্যাপী বৌদ্ধদের এ ধর্মীয় উৎসব শুরু হয়। এসময় জাতীয় ও ধর্মীয় পতাকা উত্তোলনসহ শান্তির পায়রা উড়িয়ে নানা কর্মসূচীর উদ্বোধন হয়। এরপর ধর্মীয় বক্তব্য প্রদান করেন বিভিন্ন মন্দির থেকে আগত ১৭ জন প্রসিদ্ধ ধর্মীয় গুরু। পরে একটি মঙ্গলশোভা যাত্রা রাখাইন অধ্যূষিত এলাকা পদক্ষিণ করে মন্দিরে এসে জমায়েত হয়।

শোভাযাত্রাসহ আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনে ছৈ ( ধর্মীয় চৌকষ বাদক দল) হিসেবে ছিলেন বাংলাদেশ রাখাইন স্টুডেন্ট কাউন্সিল কক্সবাজার জেলা শাখার সভাপতি জ জ, সাধারণ সম্পাদক জ জ ইয়ুদি, আবুরি, হাপু ও বাংলাদেশ রাখাইন স্টুডেন্ট কাউন্সিল কক্সবাজার জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক নাই নাই থেন। আয়াজনকারী রাখাইন ইয়ুথ ইউনিটির উসেনমি, মং সিয়ে, জ হ্লাইন, জ নাইন, হাবু কোম্পানি, নাইতু ও মং হ্লা ওয়ান জানান, কঠিন চীবর দান বৌদ্ধদের জন্য খুবই মঙ্গলজনক একটি উৎসব।

প্রতি বছর দীর্ঘ তিন মাস বর্ষাব্রত পালন শেষে প্রবারণা পূর্ণিমার পর একমাস ধরে প্রতিটি বিহারে ধর্মীয় ভাব গাম্ভির্যে এ উৎসব উদযাপন করা হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন হ্যাংগিং গার্ডেনের ওয়ান শে, কমং টেন, আবেল্লা, চলা, মং মং, ওয়ান জ্য, জওয়ান, মংশে লাইন, সুউজ্য, মং, নিবু, ২ দিনব্যাপী কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে-বুদ্ধপূজা, পঞ্চশীল, সংঘদান, অষ্ট-উপকরণদান ও দানশ্রেষ্ঠ। আজ কঠিন চীবর দানের মধ্য দিয়ে কর্মসূচীর ইতি ঘটবে। এছাড়া, শহরে বৌদ্ধ মন্দিরে এলাকাবাসীর উদ্যোগে ৭-৮ নভেম্বর, ১৫-১৬ নভেম্বর , বাংলাদেশ রাখাইন স্টুডেন্ট কাউন্সিল এর আয়োজনে ২৫ ও ২৬ নভেম্বর কঠিন চীবর দান উৎসব অনুষ্ঠিত হবে।


শেয়ার করুন